আস্ক প্রশ্নে আপনাকে স্বাগতম ! এটি একটি প্রশ্নোত্তর ভিত্তিক কমিউনিটি। এই সাইট সম্পর্কে বিস্তারিত জানতে এখানে ক্লিক করুন ...
24 বার প্রদর্শিত
"নিত্য নতুন সমস্যা" বিভাগে করেছেন (5,888 পয়েন্ট) 122 453 868

1 উত্তর

0 পছন্দ 0 জনের অপছন্দ
করেছেন (5,888 পয়েন্ট) 122 453 868

বিদেশের মাটিতে কাজ করে ১ কোটিরও বেশী বাংলাদেশী। এছাড়াও অনেক মানুষ ভ্রমণ কিংবা বিভিন্ন কাজে দেশের বাইরে যায়। আর দেশের সীমানা পেরোনোর সাথে সাথে আপনার মূল্যবান বস্তু হলো পাসপোর্ট। যা আপনার পরিচয় বহন করে। আর কোনো কারণে যদি সেটি হারিয়ে যায় তবে বিদেশের অপরিচিত যায়গায় পড়তে হয় মহা বিপদে। এ কারণে আপনার জেলও হতে পারে। 

তবে সেখানে আপনার পাসপোর্টটি হারিয়ে গেলে সেখানে আপনার নির্দিষ্ট কিছু কাজ রয়েছে। যার মাধ্যমে আপনি মহা বিপদ থেকে বাঁচতে পারেন খুব সহজে। 

বিদেশের মাটিতে পাসপোর্ট হারালে যা করতে হবে: 

চাকরির সময়: 
মধ্যপ্রাচ্যসহ বিভিন্ন দেশে যারা চাকরি নিয়ে যান তাদের অনেককে মালিকের কাছে পাসপোর্ট জমা দিতে হয়। মালিক পক্ষ থেকে তাদের সরকারি বিভিন্ন অনুমোদ করিয়ে দেওয়া হয়। তবে নিজের প্রয়োজনে পাসপোর্টের ফটোকপি সঙ্গে রাখতে হবে। কিন্তু কেউ যদি ব্যবসা, ফ্রি ভিসায় চাকরি করতে যান তাদের উচিত পাসপোর্ট সব সময় সঙ্গে রাখা। 

তারপরও দুর্ঘটনাবশত পাসপোর্ট হারিয়ে গেলে সে ক্ষেত্রে আপনাকে বাংলাদেশের দূতাবাসে যোগাযোগ করতে হবে। পাসপোর্টের ফটোকপি ও রোডপাস বা রাস্তায় চলাচলের প্রত্যয়নপত্র (যদি সঙ্গে থাকে) নিয়ে যোগাযোগ করলে দূতাবাসের পক্ষ থেকে আপনাকে নতুন পাসপোর্ট তৈরিতে সহায়তা করা হবে। 

ভ্রমণের সময়: 
আপনার বিদেশ ভ্রমণের পুরো আনন্দটাই মাটি হতে পারে যদি আপনি পাসপোর্ট হারিয়ে ফেলেন। কোনো কারণে যদি তা হারিয়েই ফেলেন তাহলে সবার আগে আপনাকে যোগাযোগ করতে হবে বাংলাদেশ হাই কমিশনে। কোনো ট্যুর অপারেটর বা ট্র্যাভেল এজেন্সি যদি আপনার ভ্রমণে সহায়তা করে থাকে তবে তারাই আপনাকে বাংলাদেশ হাই কমিশনের সঙ্গে যোগাযোগ করতে সহায়তা করবে। এর পর আপনাকে সহায়তা করবে বাংলাদেশ হাই কমিশন। বাংলাদেশের পাসপোর্ট অফিস ও ইমিগ্রেশন আপনার সব তথ্য পর্যবেক্ষণ করে বাংলাদেশ হাই কমিশনকে একটি পত্র বা দরখাস্ত পাঠাবে। এ পত্র বা দরখাস্তই আপনাকে সুন্দরভাবে দেশে ফিরে আসতে সহায়তা করবে। 

পাসপোর্ট নবায়ন: 
বিদেশে অবস্থান করার সময় নিজের পাসপোর্টের মেয়াদ শেষ হয়ে যেতে পারে। এ ক্ষেত্রে দুশ্চিন্তার কিছু নেই। এ ব্যাপারে সহযোগিতা করবে সে দেশের বাংলাদেশ দূতাবাস। দূতাবাসের কনস্যুলার শাখা থেকে বাংলাদেশিরা তাদের পাসপোর্ট নবায়ন করতে পারবেন। তবে মেয়াদ শেষ হওয়ার ছয় মাসের আগেই নবায়ন করা ভালো। 

পাসপোর্ট নিয়ে জালিয়াতি: 
বিদেশে নিজের বৈধতার সনদ হচ্ছে পাসপোর্ট। এই পাসপোর্টের ভিত্তিতেই নির্ধারণ করা হবে আপনি বৈধ, না অবৈধ। তাই পাসপোর্ট যত্ন করে রেখে দেবেন। কোনোভাবেই হাতছাড়া করবেন না। বিদেশে বৈধ পাসপোর্ট অনেকে অবৈধভাবে বেচাকেনা করে। টাকার বিনিময়ে একজনের বৈধ পাসপোর্ট অবৈধ ব্যক্তির কাছে বিক্রি করে দেয়। তাই পাসপোর্ট হারিয়ে গেলে দ্রুত পদক্ষেপ নিন। অনেক ক্ষেত্রে নিয়োগদাতা প্রতিষ্ঠান কর্মীদের পাসপোর্ট রেখে এর বিনিময়ে একটি পাস বা কার্ড দেয়। কর্মীরা যাতে পালিয়ে গিয়ে অন্য কোথাও কাজ করতে না পারে, তার জন্য এমনটি করা হয়। 

কামরুল হাসান ফরহাদ, সমন্বয়ক হিসেবে অন্তর্ভুক্ত আছেন আস্ক প্রশ্ন ডট কমের সাথে। নিজের সমস্যার সমাধানের পন্থা নিজেই খুঁজে বের করে সামনের দিকে এগিয়ে যেতে ভালোবাসেন। প্রশ্ন অ্যানসারকে ভালোবেসে নিয়েছেন নিজে জানার ও অপরকে জানানোর জন্য।

সম্পর্কিত প্রশ্নগুচ্ছ

0 টি উত্তর
02 নভেম্বর 2019 "নিত্য নতুন সমস্যা" বিভাগে জিজ্ঞাসা করেছেন Md jasim uddin (48 পয়েন্ট)
0 টি উত্তর
15 এপ্রিল 2018 "আন্তর্জাতিক" বিভাগে জিজ্ঞাসা করেছেন শামীম মাহমুদ (7,783 পয়েন্ট) 472 1406 2496
1 উত্তর
25 সেপ্টেম্বর 2019 "ইসলাম ধর্ম" বিভাগে জিজ্ঞাসা করেছেন কামরুল হাসান ফরহাদ (5,888 পয়েন্ট) 122 453 868

27,568 টি প্রশ্ন

29,335 টি উত্তর

3,122 টি মন্তব্য

2,441 জন সদস্য



আস্ক প্রশ্ন এমন একটি প্ল্যাটফর্ম, যেখানে কমিউনিটির এই প্ল্যাটফর্মের সদস্যের মাধ্যমে আপনার প্রশ্নের উত্তর বা সমস্যার সমাধান পেতে পারেন এবং আপনি অন্য জনের প্রশ্নের উত্তর বা সমস্যার সমাধান দিতে পারবেন। মূলত এটি বাংলা ভাষাভাষীদের জন্য একটি প্রশ্নোত্তর ভিত্তিক কমিউনিটি। বিভিন্ন প্রশ্নের উত্তর দেওয়ার পাশাপাশি অনলাইনে উন্মুক্ত তথ্যভান্ডার গড়ে তোলা আমাদের লক্ষ্য।

  1. Abu Sufian Anik

    50 পয়েন্ট

    0 উত্তর

    0 প্রশ্ন

  2. মোঃ শান্ত

    50 পয়েন্ট

    0 উত্তর

    0 প্রশ্ন

  3. ok

    50 পয়েন্ট

    0 উত্তর

    0 প্রশ্ন

  4. Sabt

    49 পয়েন্ট

    0 উত্তর

    1 প্রশ্ন

শীর্ষ বিশেষ সদস্য

4 টি পরীক্ষণ কার্যক্রম
...